রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের খবর আপডেট: রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে যুদ্ধ পঞ্চম মাসে পৌঁছেছে। হাজার হাজার প্রাণ হারালেও রাশিয়া কোনোভাবেই পিছু হটতে প্রস্তুত নয়। বৃহস্পতিবার-শুক্রবার মধ্যবর্তী রাতে, রাশিয়ান সেনারা ইউক্রেনের ওডেসা ওব্লাস্টের একটি 9 তলা ভবনে একটি ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে। এই হামলায় ১০ জন নিহত ও ৭ জনের বেশি আহত হয়। হামলার পর সেখানে উদ্ধার অভিযান চালানো হচ্ছে। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে।

এর আগে 27 জুন রাশিয়া ইউক্রেনের একটি সেন্ট্রাল মলে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে, এতে 18 জন বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়। হামলার পর ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনকে সন্ত্রাসী বলেছেন।

এর পাশাপাশি চলুন জেনে নিই রাশিয়া ও ইউক্রেন যুদ্ধের সর্বশেষ আপডেট…

যুদ্ধের 127 তম দিনে, রাশিয়ান সেনাবাহিনী ইউক্রেনের একটি শহর লিসিচানস্কে আক্রমণ তীব্র করে, যার পরে পরিস্থিতি আরও খারাপ হয়। গোলাগুলির কারণে বেসামরিক লোকজনের বের হওয়া কঠিন হয়ে পড়েছে। বৃহস্পতিবার লুগানস্কের গভর্নর সের্গেই গেদে এ তথ্য জানিয়েছেন।

সের্গেইর মতে, রুশ সেনাবাহিনী বিভিন্ন দিক থেকে লিসিচানস্কের দিকে অগ্রসর হচ্ছে। একদিন আগে অর্থাৎ বুধবার ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর মাইকোলাইভের একটি ভবনে হামলা চালায় রুশ সেনাবাহিনী। হামলায় ইউক্রেনের ২ জন বেসামরিক নাগরিক নিহত, ৩ জন আহত হয়েছে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন সুইডেন এবং ফিনল্যান্ড ন্যাটোতে যোগদানের দিকে আরও একটি পদক্ষেপ নেওয়ার প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। পুতিন বলেন, ফিনল্যান্ড ও সুইডেন ন্যাটোতে যোগ দিলে ইউক্রেনের মতো সমস্যা থাকবে না।

রুশ প্রেসিডেন্ট বলেন, যদি উভয় দেশ ন্যাটোতে যোগ দিতে চায়, তাহলে আমরা তাদের স্বাগত জানাই, তবে উভয় দেশই ন্যাটোতে যোগ দিলে আমাদের সম্পর্কে কিছুটা উত্তেজনা সৃষ্টি হবে।

এই প্রথম যুদ্ধের সময় রাশিয়া তার নিজের ইচ্ছায় ইউক্রেনের একটি জায়গা ছেড়েছিল। তবে, অন্যদিকে ইউক্রেন দাবি করছে যে তাদের সেনাবাহিনী এই দ্বীপ থেকে রাশিয়ান সেনাবাহিনীকে পালাতে বাধ্য করেছে।

ইউক্রেনের কৃষি পণ্য এবং গম এই দ্বীপের কাছাকাছি থেকে রপ্তানি করা হয়। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে- আমরা মানবিক কারণে এই স্থানটি ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এই দ্বীপকে জিমিনি দ্বীপও বলা হয়।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের রসিকতার জবাব দিয়েছেন। জনসনকে পাল্টা দিয়ে পুতিন বলেছিলেন যে আমার তুলনায় জনসনকে শার্টলেস দেখতে পাওয়াটা বড় পরিহাস হবে। তুর্কমেনিস্তানে পৌঁছে পুতিন বলেছিলেন যে পশ্চিমা নেতারা যারা ইউক্রেনের পক্ষে আমার সমালোচনা করে, তারা মদ্যপানে লিপ্ত এবং ফিটনেসের দিকে মনোযোগ দেয় না।

কিয়েভ এবং মস্কোর মধ্যে আলোচনা থেকে আরেকটি আশার আলো এসেছে।রাশিয়া তার 144 বন্দিকে ইউক্রেনের কাছে হস্তান্তর করেছে। ইউক্রেন একই কাজ করেছে এবং 144 রুশ বন্দিকে মুক্তি দিয়েছে। চার মাস যুদ্ধের পর এই প্রথম দুই দেশ আলোচনার পর কোনো ইতিবাচক পদক্ষেপ নিল।

এদিকে মাদ্রিদে ন্যাটোভুক্ত দেশগুলোর রাষ্ট্রপ্রধানদের বৈঠক চলছে। বিডেনকে সাফ করে দেওয়া মার্কিন প্রেসিডেন্ট ইউরোপে মার্কিন সেনা বাড়াবেন। আমেরিকার পঞ্চম কর্পস পোল্যান্ডে মোতায়েন করা হচ্ছে।

ব্রিটেন বলেছে যে তারা রাশিয়ার প্রভাব মোকাবেলা করতে এবং ন্যাটো মিশনকে শক্তিশালী করতে বসনিয়া-হার্জেগোভিনায় সামরিক বিশেষজ্ঞ পাঠাচ্ছে। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিচ্ছিন্নতাবাদের আগুন জ্বালিয়ে রাশিয়া এসব দেশে গত তিন দশকের লাভ ফিরিয়ে দিতে চায়, কিন্তু ব্রিটেন তা হতে দেবে না।

হিন্দি News18 হিন্দিতে প্রথম ব্রেকিং নিউজ পড়ুন | আজকের সর্বশেষ খবর, লাইভ খবর আপডেট, সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য হিন্দি সংবাদ ওয়েবসাইট নিউজ 18 হিন্দি পড়ুন |

প্রথম প্রকাশিত: জুলাই 01, 2022, 08:01 IST

,



Source link

Previous articleখুনিদের প্রকাশ্যে ফাঁসি দাবি করে বিকেইউ সভাপতি নরেশ টিকাইত বলেন- নিষ্ঠুরতার সীমা ছাড়িয়েছে
Next articleগোটা ইউপিতে বর্ষা কড়া নাড়ল, আজ পর্যন্ত ভারী বৃষ্টি হবে, জেনে নিন আবহাওয়ার পুরো অবস্থা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here